29 C
Bangladesh
বুধবার, মে ২২, ২০২৪

গবিতে বিশ্ব ফার্মাসিস্ট দিবস উদযাপিত

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গবিতে বিশ্ব ফার্মাসিস্ট দিবস উদযাপিত

 গবি প্রতিনিধি: সাভারের গণ বিশ্ববিদ্যালয়ে (গবি) ‘Pharmacy United in Action for a Healthier World’ (একটি স্বাস্থ্যসম্মত পৃথিবীর লক্ষ্যে ঐক্যবদ্ধ ফার্মেসি সেবা) এই স্লোগানকে সামনে রেখে পালিত হলো ‘বিশ্ব ফার্মাসিস্ট দিবস ২০২২’।

রবিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে গবির উপাচার্য (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ড. মো.আবুল হোসেন কেক কাঁটার মাধ্যমে অনুষ্ঠানটি উদ্বোধন করেন। এসময় রেজিস্ট্রার কৃষিবিদ এস তাসাদ্দেক আহমেদ, ট্রেজারার অধ্যাপক মো: সিরাজুল ইসলাম, সিনিয়র সহকারী রেজিস্ট্রার আবু মোহাম্মাদ মুকাম্মেল সহ বিভাগের অন্যান্য শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে ক্যাম্পাস থেকে র‍্যালি বের হয়ে একাডেমিক ভবন, বাদামতলা এবং প্রশাসনিক ভবন হয়ে একাডেমিক ভবনের সামনে এসে র‍্যালিটি শেষ হয়।

আরো পড়ুন:  ফোবানার বৃত্তি পেলেন জবির ৫ শিক্ষার্থী

ফার্মেসি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মিসেস রোজিনা পারুল বলেন, ফার্মেসি বিভাগ নিয়ে এখনো সাধারণ মানুষের মধ্যে ভুল ধারণা রয়েছে। এগুলো মাথায় না নিয়ে নিজেকে পরিশ্রমের মাধ্যেমে সঠিক জায়গায় নিয়ে যেতে হবে। মানুষের ভুল ধারণা ভেঙে দেওয়ার দায়িত্ব নিজেদেরই নিতে হবে। এছাড়াও আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ৩০তম ব্যাচের একজন শিক্ষার্থী স্কলারশিপ পেয়ে মালয়েশিয়ায় পড়ার সুযোগ পেয়েছে যেটা ইতিমধ্যেই দারুন একটা উদাহরণ।

আরো পড়ুন:  বশেমুরবিপ্রবিতে বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গবন্ধুর পরিবারের নামে দেওয়া হবে কোরবানি

ফার্মেসী বিভাগের ৩৭ তম ব্যাচের শিক্ষার্থী ইভানা আক্তার বলেন, বিশ্ব ফার্মাসিস্ট দিবস প্রতিবারই আমাদের দায়িত্ব মনে করিয়ে দেয়। ফার্মাসিস্টদের প্রধান কাজ হচ্ছে দেশের সকল মানুষের স্বাস্থ্য রক্ষায় কাজ করা। জনসচেতনতাই আমাদের প্রধান কাজ।

তিনি আরও বলেন, আমাদের সুস্বাস্থ্য নিশ্চয়তা করি ডাক্তারের কাছে থেকে কিন্তু ডাক্তারদের পিছনে কাজ করে যায় ফার্মাসিস্টরা। কারণ ডাক্তাররা রোগ নির্ণয় করে এবং মেডিকেশন দিবে কিন্তু এই মেডিকেশন দেয় ফার্মাসিস্টরা। কিন্তু আমাদের দেশের সাধারণ মানুষরা আমাদের এই অবদানগুলি জানেনা। সুতরাং, এগুলো জানানো আমাদের ফার্মাসিস্টদের কাজ তাই যার যার নিজ জায়গা থেকে নিজেদের চেষ্টা করতে হবে।

আরো পড়ুন:  দুর্নীতি প্রতিরোধে বেরোবিতে সেমিনার

উল্লেখ্য, ফার্মেসি পেশায় কর্মরতদের উৎসাহ প্রদান এবং এ পেশা সম্পর্কে সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে ২০১০ সাল থেকে সারাবিশ্বে এই দিবস পালিত হয়ে আসছে। ২০১৪ সাল থেকে বাংলাদেশে পালিত হচ্ছে এ দিবস। সাধারণ মানুষকে এ মহান পেশা সম্পর্কে জানাতে এবং এ পেশার মানকে উচ্চ মর্যাদার আসনে আসীন রাখতে সারা বিশ্বে এই দিবস পালিত হয়ে থাকে।

Check out our other content

Check out other tags:

Most Popular Articles